বরিশাল

জন্ম থেকেই শ্রবন প্রতিবন্ধি ৭০ বছর বয়সে ভাতা পেতে চান “আঃ আজিজ

  প্রতিনিধি ২২ আগস্ট ২০২১ , ৩:৫৪:৩৭ প্রিন্ট সংস্করণ

মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি :: জন্ম থেকেই শ্রবন প্রতিবন্ধি আঃ আজিজ ফরাজী। জন্ম তারিখ- ০১.০১.১৯৫১ খ্রি.। পিতা মৃত. আঃ গহুর ফরাজী। পেশায় একজন কাঠমিস্ত্রী। এলাকায় আজিজ মিস্ত্রি নামেই বেশী পরিচিত। পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলার ৬ নং টিকিকাটা ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ড পূর্ব সেনের টিকিকাটা গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা তিনি।

আঃ আজিজ ফরাজীর প্রতিবন্ধি পরিচয়পত্র নং- ৭৯১৫৮৮৬২৩৮৭২৯ -০৭। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সমাজসেবা অধিদফতর, সমাজকল্যান মন্ত্রণালয় থেকে ২২.০৩.২০২০ খ্রি. তারিখ প্রতিবন্ধি ব্যক্তির পরিচয়পত্রটি ইস্যু করা হয়। কিন্তু প্রতিবন্ধি পরিচয়পত্র মিললেও এখনও মিলেনি ভাতা কার্ড।

প্রতিবন্ধি আজিজের ২ ছেলে ও ২ মেয়ে। বড় ছেলে সেলিম ফরাজী চট্রগ্রামে সিএনজি চালক। সেলিমের স্ত্রী গার্মেন্টস কর্মী। ছোট ছেলে হালিম ফরাজী বাবার সাথে একই ঘরে থাকেন। কৃষি কাজ সহ যখন যে কাজ পান সুবিধামত সেটাই করেন। বাবার প্রতিবন্ধি ভাতার জন্য জনপ্রতিনিধি ও সমাজসেবা অফিসের দ্বারে দ্বারে ঘুরছে ছেলে হালিম ফরাজী নিজেও। ব্যর্থ চেষ্টা মনে করে এখন অনেকটাই হতাশ তারা।

এ ব্যাপারে স্হানীয় ইউপি সদস্য জসিম উদ্দিন বার্তা বাজারের প্রতিনিধিকে জানান, আঃ আজিজ একজন শ্রবন প্রতিবন্ধি এটা সত্য। জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি, প্রতিবন্ধি পরিচয়পত্রের ফটোকপি এবং একটি বিকাশ নাম্বার নিয়ে যোগাযোগ করার জন্য বলেন ওই ইউপি সদস্য।

প্রতিবন্ধি পরিচয়পত্র পাওয়ার পরেও ভাতা না পাওয়ার বিষয়ে উপজেলা সমাজসেবা অফিসার তারিকুল ইসলাম এর নিকট ফোন দিয়ে তার কোন বক্তব্য পাওয়া যায় নি।

Print Friendly, PDF & Email

আরও খবর

Sponsered content

ব্রেকিং নিউজ